ইসলামিকদোয়া

রাসুল (সাঃ) কসম করে বলেছেন দোয়াটি পড়ে যা চাইবে তাই পাইবে!

আসসালামুআলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহ সুপ্রিয়া দর্শক মন্ডলী আশা করি আল্লাহ তায়ালার অশেষ মেহেরবানীতে আপনারা সবাই ভাল আছেন। আজকে নবী করীম সাল্লাল্লাহু সালামের শেখানো একটি বিশেষ দোয়া আমরা শেখার চেষ্টা করব। পাঁচটি ইসমে আজম সমৃদ্ধ এই দোয়াটি এতটা ফজিলতপূর্ণ রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাই সাল্লাম কসম করে বলেছেন। যে দোয়াটি পড়ে আল্লাহর কাছে তাই পাবে। যদি তার জন্য অকল্যাণকর না হয় । বিভিন্ন উদ্দেশ্য অর্জন করার জন্য বিভিন্ন মাকসাদ হাসিল করার জন্য আমরা আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের দরবারে দোয়া করে থাকি।

আল্লাহ রব্বুল আলামীন বলেছেনঃ তোমরা আমার নিকট দোয়া করো আমি তোমাদের দোয়া কবুল করব। তোমরা আমার নিকট চাও আমি তোমাদের চাওয়া পূরণ করব। আর রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাই সাল্লাম আমাদের জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে কিভাবে দোয়া করতে হবে তার শিখিয়ে গিয়েছেন এবং প্রতিটি বিষয়ের জন্য আলাদা দোয়া বলে গিয়েছেন।রাসুল সাঃ কসম দিয়ে একটি দোয়ার কথা বলেছেন। যে দোয়া পাঠ করার পর আল্লাহর কাছে যা চাওয়া হবে আল্লাহতালা তাই কবুল করবেন। এই সম্পর্কে হযরত আনাস ইবনে রাদিয়াল্লাহু তা’আলা আনহু বলেন আমরা রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাই সাল্লাম এর পাশে একদা বসেছিলাম। এই পাশে এক ব্যক্তি দাঁড়িয়ে নামাজ পড়ছিল। রুকু করল সেজদা করল তারপর শেষ বৈঠকে আত্তাহিয়্যাতু এরপরে এই দোয়াটি পড়লে।

দোয়াটি হচ্ছেঃ  আল্লাহুম্মা ইন্নি আসআলুকা বি আন্না লাকাল হামদ লা ইলাহা ইল্লা আনতা আলমান্নানুবাদিওস  সামাওয়াতি ওয়াল আরদা ইয়া জালজালালি আল ইকরাম, ইয়া হাইয়ু ইয়া কাইয়ুম ইন্নি আসআলুকা।

অর্থ হে আল্লাহ নিশ্চয়ই আমি তোমার কাছে চাই। কারণ তোমার জন্যই সকল প্রশংসা  তুমি ছাড়া কোন উপাস্য নেই। তুমি সর্বাধিক দাতা আকাশ জমিনের সৃষ্টিকর্তা মহিমান্বিত চিরঞ্জীব। সবকিছুর ধারক ও বাহক নিশ্চয়ই আমি তোমার কাছে চাচ্ছি। রাসূলাল্লাহ জিজ্ঞাসা করলেন তোমরা কি জানো সে কিদ্বারা দোয়া করেছেন ।  সাহাবীরা বললেন আল্লাহ এবং তাঁর রাসূলই ভালো জানেন।রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাই সাল্লাম বললেন ঐ সত্তার কসম যাঁর হাতে আমার প্রাণ। আল্লাহ রাব্বুল আলামীনের এমন মহান নাম দাঁড়া দোয়া করেছে যারা দোয়া করেছে।যার দ্বারা দোয়া করলে দোয়া কবুল করা আল্লাহ রাব্বুল আলামীন নিজের জন্য বাধ্যতামূলক মনে করেন। যে নামের উসিলায় আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের কাছে দোয়া চাইলে আল্লাহ সাথে সাথে দিয়ে দেন।দোয়াটি পরার নিয়ম হল যে কোন নামাজে আত্তাহিয়্যাতু পড়ার পর দরুদ শরীফ পড়ার পর এ  দোয়টি পড়বেন।

তারপর আপনার মনের সকল ইচ্ছা আল্লাহর নিকট পেশ করবেন অথবা কোন নামাজের পর নামাজ শেষ করে মুনাজাতে এই দোয়াটি পড়ুন এবং আল্লাহর কাছে আপনার মনের চাওয়া বাসনা পেশ করবেন। ইনশাআল্লাহ আল্লাহ আপনার দোয়া কবুল করবেন। আর এটি এমন একটি দোয়া যেখানে আল্লাহ রাব্বুল আলামীনের 99 টি নামের মধ্যে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ  পাঁচটি নামের উল্লেখ রয়েছে যেগুলোকে ইসমে আজম বলা হয়। আল্লাহ তাআলা আমাদের সকলকে আমল ও বেশি বেশি দোয়া করার তৌফিক দান করুক।

আপনি এই দোয়াটি পড়ে সর্বশেষ দোয়ামা সুরা ঃআল্লাহুম্মা ইন্নি জালামতু নাফসি  যুলমান কাসিরাও ওয়ালা ইয়াগফিরো যুণুবা ইল্লা আনতা মাগফিরিলি মাগফিরাতাম মিনি ইন্দিকা  ওয়ার হাম্নী ইন্নাকা গফুরুুর রাহিম। এ দোয়াটি ওপুরোটা পড়ে নিতে পারেন

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
Close